General Knowledge from www.selltoearn.com

আন্তর্জাতিক সংস্থায় বাংলাদেশ:
• Commonwealth– ১৮ এপ্রিল ১৯৭২
• IMF - ১০মে, ১৯৭২
• WHO – ১৭ মে ১৯৭২
• ILO – ২২ জুন ১৯৭২
• IBRD(World Bank) – ১৭ আগস্ট ১৯৭২
• UNO - ১৭ সেপ্টেম্বর ১৯৭২
• UNESCO – ২৭ অক্টোবর ১৯৭২
• IAEA - ১৯৭২
• NAM – ১৯৭২
• FAO – ১২ নভেম্বর ১৯৭৩
• OIC - ২৩ ফেব্রুয়ারী ১৯৭৪
• IDB - ১৯৭৪
• INTERPOL – ১৪ অক্টোবর ১৯৭৬
• ICC-র সহযোগী সদস্য – ২৬ জুলাই
১৯৭৭
• ICC-র পূর্ণ সদস্য – ২৬ জুন ২০০০
• FIFA – ১৯৭৪
• IOC(Olympic) – ১৫ ফেব্রুয়ারী ১৯৮০
General Knowledge:
** পদের শেষে’-গ্রস্থ’ নয় ‘-গ্রস্ত’ হবে। যেমন— বাধাগ্রস্ত, ক্ষতিগ্রস্ত, হতাশাগ্রস্ত, বিপদগ্রস্ত ইত্যাদি।
** অঞ্জলি দ্বারা গঠিত সকল শব্দে ই-কার হবে। যেমন— অঞ্জলি, গীতাঞ্জলি, শ্রদ্ধাঞ্জলি ইত্যাদি।
** ‘কে’ এবং ‘-কে’ ব্যবহার: প্রশ্নবোধক অর্থে ‘কে’ (ইংরেজিতে Who অর্থে) আলাদা ব্যবহার হয়। যেমন— হৃদয় কে? প্রশ্ন করা বোঝায় না এমন শব্দে ‘-কে’ এক সাথে ব্যবহার হবে। যেমন— হৃদয়কে আসতে বলো।
** বিদেশি শব্দে ণ, ছ, ষ ব্যবহার হবে না। যেমন— হর্ন, কর্নার, সমিল (করাতকল), স্টার, আস্‌সালামু আলাইকুম, ইনসান, বাসস্ট্যান্ড ইত্যাদি।
১।’ কালাপানি ’ কোন দুই রাষ্ট্রের মধ্যে অমীমাংসিত ভূ-খণ্ড ? = ভারত ও নেপাল
২ । বাংলাদেশের নিম্নলিখিত জেলাসমূহের মধ্যে কোন জেলায় নিচু ভূমির পরিমাণ বেশি ? = কিশোরগঞ্জ
৩। ভারতের কয়টি ‘ছিটমহল’ বাংলাদেশের ভৌগোলিক সীমায় অন্তর্ভূক্ত হলো ?
=১১১টি
৪। সুয়েজ খাল কোন বছর চালু হয় ?
= ১৮৬৯
৫। সুন্দরবনের বাঘ গণনায় ব্যবহৃত হয়
= পাগমার্ক
৬। গভীর সমুদ্রবন্ধর নির্মাণের জন্য প্রস্তাবিত সোনাদিয়া দ্বীপের আয়তন কত ?
= ৯ বর্গ কি.মি
ইংরেজিতে কিভাবে উৎসাহিত করবেন……….
✪ Good job – সাবাশ!
✪ Keep going - চলতে থাকো
✪ Don’t be afraid - ভয় পেয়ো না
✪ Never Give up - হাল ছেড়ো না
✪ That’s a good effort - এটা একটা ভালো প্রচেষ্টা
✪ There is nothing to fear - ভয়ের কোন কারন নেই
✪ I’m so proud of you - আমি তোমার জন্য গর্বিত
✪ Believe in yourself - নিজের ওপর বিশ্বাস রাখ
✪ Nothing is impossible – কোন কিছুই অসম্ভব নয়।
✪ Don’t get nervous - ঘাবড়াবে না
✪ Stay strong - শক্ত হও
✪ I’m behind you absolutely - আমি তোমার পেছনে সম্পূর্ণভাবে আছি
✪ Rest assured - নিশ্চিন্তে থাকুন
✪ Don’t hesitate - সংকোচ করবে না
✪ Do your best - সাধ্যমতো চেষ্টা করো
✪ Don’t worry - চিন্তা করো না
✪ It doesn’t matter - এটা কোন ব্যাপার না
✪ That’s a real improvement - এটা বাস্তবে উন্নতি হচ্ছে
✪ Come on, you can do it - শোন, তুমি এটা করতে পারবে
✪ যদি তোমার ধৈর্য্য থাকে তবে সফল হবে
If you have the patience, so you'll succeed.
General Knowledge:
১. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর প্রকল্পের নাম কী? উত্তর : পদ্মা বহুমুখী সেতু প্রকল্প।
২. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর দৈর্ঘ্য কত? উত্তর : ৬.১৫ কিলোমিটার।
৩. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর প্রস্থ কত? উত্তর : ৭২ ফুটের চার লেনের সড়ক।
৪. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুতে রেললাইন স্থাপন হবে কোথায়? উত্তর : নিচ তলায়।
৫. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর ভায়াডাক্ট কত কিলোমিটার? উত্তর : ৩.১৮ কিলোমিটর।
৬. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর সংযোগ সড়ক কত কিলোমিটার ? উত্তর : দুই প্রান্তে ১৪ কিলোমিটার।
৭. প্রশ্ন : পদ্মা সেতু প্রকল্পে নদীশাসন হয়েছে কত কিলোমিটার? উত্তর : দুই পাড়ে ১২ কিলোমিটর।
৮. প্রশ্ন : পদ্মা সেতু প্রকল্পে মোট ব্যয় কত? উত্তর : মূল সেতুতে ২৮ হাজার ৭৯৩ কোটি ৩৯ লাখ টাকা।
৯. প্রশ্ন : পদ্মা সেতু প্রকল্পে নদীশাসন ব্যয় কত? উত্তর : ৮ হাজার ৭০৭ কোটি ৮১ লাখ টাকা।
১০. প্রশ্ন : পদ্মা সেতু প্রকল্পে জনবল কতজন? উত্তর : প্রায় ৪ হাজার।
১১. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর ভায়াডাক্ট পিলার কয়টি? উত্তর : ৮১টি।
১২. প্রশ্ন : পানির স্তর থেকে পদ্মা সেতুর উচ্চতা কত? উত্তর : ৬০ ফুট।
১৩. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর পাইলিং গভীরতা কত? উত্তর : ৩৮৩ ফুট।
১৪. প্রশ্ন : প্রতি পিলারের জন্য পাইলিং কয়টি? উত্তর : ৬টি।
১৫. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর মোট পাইলিং সংখ্যা কত? উত্তর : ২৬৪টি।
১৬. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর নির্মাণকাজ শেষ হবে কবে? উত্তর : ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে।
১৭. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুতে কী কী থাকবে? উত্তর : গ্যাস, বিদ্যুৎ ও অপটিক্যালফাইবার লাইন পরিবহন সুবিধা।
১৮. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর ধরন কেমন? উত্তর : দ্বিতলবিশিষ্ট এই সেতু কংক্রিট আর স্টিল দিয়ে নির্মিত হবে।
১৯. প্রশ্ন : পদ্মা সেতুর পিলার সংখ্যা কত? উত্তর : ৪২টি।
২০. প্রশ্ন : পদ্মা সেতু প্রকল্পে চুক্তিবদ্ধ কোম্পানির নাম কী? উত্তর : চায়না রেলওয়ে গ্রুপ লিমিটেড।
উপসর্গ কাকে বলে?
-- যেসব বর্ণ বা বর্ণের সমষ্টি ধাতু এবং শব্দের আগে বসে সাধিত শব্দের অর্থের পরিবর্তন, সম্প্রসারণ কিংবা সংকোচন ঘটায়, তাদের বলা হয় উপসর্গ। যেমনঃ প্র, পরা, নির, পরি ইত্যাদি।
>> একটা গল্প শুনিঃ
পাতি নামের মেয়েটি অজ, মূর্খ, অঘারাম। সাহা নামের ছেলেটি অনার্স পাশ। এদের আকদ (বিয়ে) হবে এটা এটা কুউন কথা! ইতি নামের মেয়েটি সাহাকে পছন্দ করে। সে তার বন্ধুদের নির্দেশ দিল পাতিকে আড়ে আন। তার বন্ধুরা পাতিকে নিয়ে আসার পর ইতিকে বললো, “আব (এখন) বস্তায় ভর।”
>> এবার এই গল্পটাকে সংক্ষিপ্ত করে এভাবে লেখা যায়ঃ
পাতি অজ, অঘারাম। সাহা অনাস। কুউন আকদ! আড়ে আন। আব ভর ইতি।
খাটি বাংলা উপসর্গঃ পাতি, অজ, অঘা, রাম, সা, হা, অনা, স, কু, উন, আ, কদ, আড়, আন, আব, ভর, ইতি, আ,সু,নি,বি =২১ টি
আ,সু,নি,বি খাটি বাংলা এবং তৎসম দুই ধরণের উপসর্গেই আছে। তাই এরা কমন। বাকীযা থাকে সেগুলো সবই (বিদেশী ছাড়া) তৎসম উপসর্গ (২০টি)।
কাজেই এই সংক্ষিপ্ত গল্পটা মনে রাখতে পারলেই উপসর্গের খেল খতম ইনশাল্লাহ।
তৎসম উপসর্গঃ প্র, পরা, অপ, সম, নি, অনু, অব, নির, দূর, বি,অধি, সু, উৎ, পরি, প্রতি, অতি, অপি, অভি, উপ,আ = ২০ টি।
General Knowledge:
১. জাতিসংঘ গঠনের প্রধান উদ্যোক্তা কে?—মার্কিন প্রেসিডেন্ট এফডি রুজভেল্ট।
২. জাতিসংঘ এর নামকরণ করেন কে? —মার্কিন প্রেসিডেন্ট এফডি রুজভেল্ট।
৩. জাতিসংঘের নামকরণ করা হয় কবে? — ১ জানুয়ারি, ১৯৪২।
৪. জাতিসংঘের সচিবালয়ের প্রধান কে? — মহাসচিব।
৫. জাতিসংঘের সদর দপ্তর কোথায়? —নিউইয়র্ক, যুক্তরাষ্ট্র।
৬. জাতিসংঘের ইউরোপীয় র্কাযালয়-জেনেভা, সুইজারল্যান্ড।
৭. জাতিসংঘের সদর দপ্তরের জায়গাটি কে দান করেন — জন ডি রকফেলার জুনিয়র।
৮. জাতিসংঘের সদর দপ্তরের স্থপতি —ডব্লিউ হ্যারিসন।
৯. জাতিসংঘের সনদ স্বাক্ষরিত হয় কবে— ২৬জুন, ১৯৪৫ সালে।
১০.  জাতিসংঘ সনদ কার্যকরী হয় কবে থেকে — ২৪ অক্টোবর, ১৯৪৫।
১১. জাতিসংঘের সনদের রচয়িতা—আর্চিবাল্ড ম্যাকলেইশ (Archibald Macleish)।
১২. প্রতিবছর জাতিসংঘ দিবস পালিত হয় —২৪শে অক্টোবর।
১৩. জাতিসংঘের প্রত্যেক সদস্য দেশ কোন পরিষদের সদস্য? — সাধারণ পরিষদের।
১৪. জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের প্রধানকে কি বলে — সভাপতি।
১৫. জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের প্রথম অধিবেশন অনুষ্ঠিত হয় কোথায়?— লন্ডনের ওয়েস্ট মিনিস্টার হলে।
১৬. জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের সভাপতি কত বছরের জন্য নির্বাচিত হয়? — ১ বছরের জন্য।
১৭. জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের নিয়মিত বার্ষিক অধিবেশন শুরু হয়  — সেপ্টেম্বর মাসের তৃতীয় মঙ্গলবার।
১৮. নিরাপত্তা পরিষদের সদস্যরাষ্ট্রের মোট সংখ্যা কত? — ১৫টি।
১৯. নিরাপত্তা পরিষদের স্থায়ী সদস্য রাষ্ট্র — ৫টি (চীন, ফ্রান্স, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্র)।
২০. নিরাপত্তা পরিষদের অধিবেশন কতবার জাতিসংঘের সদরদপ্তরের ছাড়া অন্যত্র অনুষ্ঠিত হয় — ২বার।
২১. নিরাপত্তা পরিষদের অস্থায়ী সদস্য কত বছরের জন্য নির্বাচিত হয় — ২ বছরের জন্য।
২২. নিরাপত্তা পরিষদের সভাপতি কত বছরের জন্য নির্বাচিত হয় — ১ মাসের জন্য।
২৩. নিরাপত্তা পরিষদের কোনো সিদ্ধান্ত গ্রহণের জন্য কমপক্ষে কতটি সদস্য দেশের সম্মতির প্রয়োজন হয় — ৯টি (৫টি স্থায়ী সদস্য রাষ্ট্রসহ অতিরিক্ত ৪টি সদস্য রাষ্ট্রের)।
২৪. অর্থনৈতিক ও সামাজিক পরিষদের অধিবেশন সাধারণত বছরে কয়বার বসে— বছরে দু’বার একমাস ব্যাপী।
২৫. অর্থনৈতিক ও সামাজিক পরিষদের সদস্য কত বছরের জন্য নির্বাচিত হয়  — ৩ বছরের জন্য।
২৬. অর্থনৈতিক ও সামাজিক পরিষদের সদস্য দেশ কয়টি — ৫৪টি।
২৭. প্রতিবছর কয়টি রাষ্ট্র তিন বছর মেয়াদে অর্থনৈতিক ও সামাজিক পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হয় — ১৮টি।
২৮. আন্তর্জাতিক আদালত প্রতিষ্ঠিত হয়— ২৪শে অক্টোবর, ১৯৪৫ সালে।
২৯. আন্তর্জাতিক আদালতের বিচারকের সংখ্যা কত — ১৫ জন।
৩০. আন্তর্জাতিক আদালতের বিচারকের মেয়াদকাল — ৯ বছর।
৩১. জাতিসংঘের অফিসিয়াল ভাষা কয়টি ? — ৬টি (ইংরেজি, আরবি, ফারসি, চীনা, রুশ ও স্প্যানিশ)।
৩২. জাতিসংঘের বাজেট কোন পরিষদে ঘোষিত হয় — সাধারণ পরিষদে।
৩৩. জাতিসংঘ সনদে প্রথমে কতটি দেশ স্বাক্ষর করে — ৫১টি দেশ।
৩৪. জাতিসংঘের প্রথম মহাসচিব ছিলেন— ট্রিগভেলাই (নরওয়ে) (১৯৪৬- ১৯৫২)।
৩৫. জাতিসংঘ সচিবালয়ের কর্মকর্তা কর্মচারিগণ তাদের কাজকর্মের ভাষা হিসেবে কোন ভাষা ব্যবহার করেন — ইংরেজি অথবা ফরাসি।
৩৬. জাতিসংঘের কোন মহাসচিব শান্তিতে মরণোত্তর নোবেল পুরস্কার পান — দ্যাগ হ্যামারশোল্ড (১৯৬১ সালে)।
৩৭. আয়তনে জাতিসংঘের ছোট দেশ কোনটি — মোনাকো। (১.৯৫ বর্গ কি.মি.)।
৩৮. জনসংখ্যায় জাতিসংঘের ছোট দেশ কোনটি — ট্রুভ্যালু।
৩৯. কোন দেশ প্রথমে জাতিসংঘ সনদে স্বাক্ষর না করেও জাতিসংঘের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য হয় — পোল্যান্ড।
৪০. জাতিসংঘ বিশ্ববিদ্যালয় কোথায় অবস্থিত — টোকিও (জাপান)।
৪১. জাতিসংঘের সর্বোচ্চ কর্মকর্তা কে—মহাসচিব।
৪২.অছি পরিষদ কার অধীনে কাজ করে— সাধারণ পরিষদের।
৪৩. জাতিসংঘের কোন মহাসচিব বিমান দুর্ঘটনায় মারা যান — দ্যাগ হ্যামারশোল্ড (সুইডেন,১৯৬১)।
৪৪. জাতিসংঘের সদর দপ্তরটি কত একর জমির ওপর প্রতিষ্ঠিত — ১৭ একর।
৪৫. জাতিসংঘের আয়ের মূল উৎস কী— সদস্য দেশসমূহের চাঁদা।
৪৬. জাতিসংঘের মহাসচিব কোন পরিষদের সুপারিশে নিযুক্ত হন — নিরাপত্তা পরিষদের।
৪৭. জাতিসংঘের একমাত্র মুসলমান মহাসচিব কে — কফি আনান (ঘানা) (৭ম)।
৪৮. উ থান্ট কোন দেশের অধিবাসী ছিলেন — মিয়ানমার
৪৯. জাতিসংঘে দেয়া বাংলাদেশের চাঁদার পরিমাণ কত — নিজস্ব বাজেটের ০.০১% অংশ।
৫০. বাংলাদেশ জাতিসংঘের কততম অধিবেশনে সদস্য পদ লাভ করে?— ২৯তম।
General Knowledge:
★ প্রাচীন বাংলা ভাষার স্তর কি কি -> প্রাচীন যুগের বাংলা ভাষা, মধ্য যুগের বাংলা ভাষা, আধুনিক যুগের বাংলা ভাষা।
★ কোন গুলো ওলন্দাজ শব্দ ---> রুইতন, হরতন।
★ বাংলা ভাষার ব্যাকরণ প্রথম প্রকাশিত হয়---> ১৭৪৩ সালে।
★‘বাংলা ব্যাকরণের উৎপত্তি ও বিকাশ’ গ্রন্থটির লেখক---> ড সুনীতি কুমার চট্টোপাধ্যায়।
★ চর্যাপদের ভাষা কে নাম দেওয়া হয়েছে---> সান্ধ্য/আলো আঁধারির ভাষা।
★ প্রাচীন বাংলা ভাষার কয়টি স্তর---> তিনটি।
★ চলিত ভাষার জন্ম কোন অঞ্চলের ভাষাকে কেন্দ্র করে---> কোলকাতা।
★ কোনটি চলিত ভাষার রীতির উদাহরণ---> আমি তাকে দেখে খুশি হয়েছি।
★ লাঠি' ও 'চাউল' শব্দ দুটি --> দেশী শব্দ।
১) বাংলা গদ্যের জনক = ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর।
২) বাংলা গদ্যের পথিকৃৎ = উইলিয়াম কেরি।
৩) বাংলা গদ্য রীতির প্রবর্তক = প্রমথ চৌধুরী।
৪) বাংলা গদ্য ছন্দের প্রবর্তক = রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর।
৫) বাংলা সাহিত্যে মুক্তক ছন্দের প্রবর্তক = রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর।
৬) বাংলা ছোট গল্পের জনক = রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর।
৭) বাংলা মুদ্রন শিল্পের জনক = চার্লস উইলকিনস।
৮) সর্বপ্রথম বাংলা অক্ষর খোদাই করেন = চার্লস উইলকিনস।
৯) বাঙ্গালিদের মধ্যে সর্বপ্রথম বাংলা অক্ষর খোদাই করেন = পঞ্চানন কর্মকার।
১০) বাংলা বর্ণমালা স্থায়ী রূপ লাভ করে = ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরের দ্বারা।
১১) সর্বপ্রথম প্রকাশিত বাংলা পত্রিকার নাম = দিকদর্শন, ১৮১৮ সালের এপ্রিলে প্রথম প্রকাশিত।
১২) সর্বপ্রথম প্রকাশিত বাংলাদেশি পত্রিকার নাম = রংপুর বার্তাবহ; রংপুর থেকে প্রকাশিত।
১৩) উপমহাদেশে প্রথম ছাপাখানা আমদানি করে = পর্তুগিজরা।
১৪) উপমহাদেশের প্রথম ছাপাখানায় মুদ্রিত বইয়ের নাম = কণুকসোজ (পর্তুগিজ ভাষায় রচিত)।
১৫) উপমহাদেশের প্রথম ছাপাখানা স্থাপিত হয় = ১৪৯৮ সালে।
১৬) ঢাকায় প্রথম ছাপাখানা স্থাপিত হয় = ১৮৬০ সালে।
১৭) ঢাকা থেকে প্রকাশিত প্রথম গ্রন্থ = নীলদর্পণ (১৮৬০)।
১৮) বাংলায় মুদ্রিত প্রথম মৌলিক গ্রন্থের নাম = রাজা প্রতাপাদিত্য চরিত্র।
১৯) মুসলমান সম্পাদিত প্রথম পত্রিকা = সমাচার সভারাজেন্দ্র।
২০) বাংলা দৈনিকের প্রথম মহিলা সাংবাদিক = লায়লা সামাদ।
২১) বাংলা সাহিত্যের প্রথম মুসলিম বাংলা গদ্য লেখক = শামসুদ্দিন মুহম্মদ সিদ্দিকী।
২২) বাংলা সাহিত্যের প্রথম মুসলিম বাংলা গদ্য লেখিকা = বিবি তাহেরন নেছা।
২৩) বাইবেলের প্রথম অনুবাদক = উইলিয়াম কেরি।
২৪) বাংলা সাহিত্যের প্রথম ব্যাকরণ রচয়িতা = ম্যানওয়েল দ্যা আসসুম্পসাঁও (পর্তুগিজ পাদ্রী)।
২৫) বাংলা সাহিত্যের প্রথম ব্যাকরণের নাম = ম্যানওয়েল দ্যা আসসুম্পসাঁও রচিত “কৃপার শাস্ত্রের অর্থভেদ” (রচনাকাল – ১৭৩৪, প্রকাশকাল - ১৭৪৩)।
২৬) বাংলা সাহিত্যের প্রথম ব্যাকরণ গ্রন্থ রচয়িতা = ন্যাথানিয়েল ব্রাসি হ্যালহেড।
২৭) বাংলা সাহিত্যের প্রথম ব্যাকরণ গ্রন্থের নাম = ন্যাথানিয়েল ব্রাসি হ্যালহেড রচিত “A Grammar Of The Bengali Language” (মুদ্রন ও প্রকাশকাল - ১৭৭৬)। এটি সর্বপ্রথম বাংলা অক্ষরে মুদ্রিত পূর্ণাঙ্গ বাংলা ব্যাকরণ বই।
[মনে রাখতে হবে ম্যানওয়েল বাংলা সাহিত্যের প্রথম ব্যাকরণ রচনা করেন। আর হ্যালহেড বাংলা সাহিত্যের প্রথম ব্যাকরণ গ্রন্থ রচনা করেন।]
২৮) বাংলা সাহিত্যের প্রথম বাঙালি ব্যাকরণ রচয়িতা = রাজা রামমোহন রায়।
২৯) বাংলাদেশ বেতারে প্রচারিত প্রথম নাটক = বুদ্ধদেব বসুর “কাঠঠোকরা”।
৩০) বাংলাদেশ টেলিভিশনে প্রচারিত প্রথম নাটক = “একতলা দোতলা”।
General Knowledge:
•রক্তের গ্রুপ আবিষ্কার করেন- Land Steiner
•মানব দেহের রক্ত সঞ্চালন চক্র আবিস্কার করেন – William Harvey
•সার্বজনীন গ্রহীতা- AB গ্রুপ।
•সার্বজনীন দাতা- O গ্রুপ।
•হিমোগ্লোবিনের কাজ – অক্সিজেন ও কার্বন ডাই অক্সাইড বহন করা।
•যে প্রাণীর রক্তে লৌহিত রক্ত কণিকা নেই কিন্তু হিমোগ্লুবিন আছে – কেঁচো।
•যে প্রাণীর রক্তে লৌহিত রক্ত কণিকা আছে – উট।
•স্বাভাবিকের তুলনায় রক্তে লৌহিত রক্ত কণিকায় বেড়ে যাওয়া – Polycythemia।
•পিত্তরঞ্জক/ বিলিরুবিন তৈরি হয় – লৌহিত রক্ত কণিকার ভাঙ্গনে।
•শ্বেত রক্ত কণিকা কমে যাওয়া বলতে বুঝায় – Leukopenia
•শ্বেত রক্ত কণিকা বেড়ে যাওয়া বলতে বুঝায় – লিউকেমিয়া বা ব্লাড ক্যান্সার।
•লোহিত রক্তকণিকা : শ্বেতরক্তকণিকা – ৫০০ : ১।
•হেপারিন তৈরি করে – শ্বেত রক্ত কণিকার বেসোফিল।
•আনুবীক্ষনিক সৈনিক – শ্বেত রক্ত কণিকা।
•অণুচক্রিকাঃ সবচেয়ে ছোট রক্তকণিকা, নিউক্লিয়াসবিহীন।
•ধমনী- হৃদপিণ্ড থেকে অক্সিজেন সমৃদ্ধ পুরো দেহে ছড়িয়ে দেয়।
•শিরাঃ: দেহের বিভিন্ন অংশ হতে কার্বন-ডাই-অক্সাইড যুক্ত রক্ত হৃদপিণ্ডে বহন করে।
•ফুসফুসীয় ধমনী কার্বন-ডাই-অক্সাইড যুক্ত রক্ত বহন করে।
•ফুসফুসীয় শিরা/পালমোনারী শিরা অক্সিজেন যুক্ত রক্ত বহন করে।
•ধমনীর মধ্য দিয়ে রক্ত বাহিত হওয়ার বেগ ৪০-৫০ কিমি/ঘণ্টা।
•ডাক্তারের নাড়ী দেখা – ধমনীর স্পন্দন দেখা।
•জোঁকের লালাতে হিরোডিন নামক পদার্থ থাকে বলে জোঁকে কামড়ালে রক্ত জমাট বাঁধে না।
•রক্ত গ্লুকোজের স্বাভাবিক মাত্রা ৬৫-১১০ mg/dl।
•আমাদের দেহকোষ রক্ত হতে গ্রহণ করে – অক্সিজেন ও গ্লুকোজ।
•একজন মানুষ প্রতিবার রক্ত দিতে পারে ৩০০-৪০০ মিলিমিটার।
•রক্তের লৌহিত কণিকা তৈরি হয় – লোহিত অস্থি মজ্জায়।
•মানুষের দেহে মোট ওজনের — ৮% রক্ত থাকে।
•ব্লাড ক্যান্সার হয় – রক্তে শ্বেত কণিকার সংখ্যা বেড়ে গেলে।
•রক্ত জমাট বাঁধতে কাজ করে ১৩টি ফ্যাক্টর ।
•রক্তে প্রয়োজনের অতিরিক্ত গ্লুকোজ পাওয়া গেলে ডায়াবেটিস রোগ বুঝা যায় ।
•রক্তের চাপ শিরায় সবচেয়ে কম ।
•রক্ত জমাট বাধার পার রক্তের হালকা অবশিষ্ট তরল অংশকে সিরাম বলে ।
•রক্তে লোহিত ও শ্বেত কণিকার অনুপাত – ৫০০ : ১।
•যে ওষুধ রক্ত জমাট বাঁধতে দেয় না -হেপারিন।
•শিরা কার্বন ডাইঅক্সাইড সমৃদ্ধ রক্ত পরিবহন করে।
•রক্তের এন্টিজেন লোহিত রক্তকণিকায় থাকে।
•শ্বেত রক্তকণিকা দেহে প্রহরীর মত কাজ করে ।
•সারাদেহে রক্ত সংবহিত হওয়ার কারণ হৃৎপিন্ডের সংকোচন ও প্রসারণ ।
•রক্তনালির ভিতরে রক্ত জমাট বেঁধে যাওয়াকে থ্রম্বোসিস বলে।
#গানে_গানে_ইংরেজি
..................................
আমি তোমাকে আরো কাছে থেকে , তুমি আমাকে আরো কাছে থেকে যদি জানতে চাও = If I want to know you more closely/ intimately/ nearly/ flush/ hermetically/ tightly/ compactly/ meticulously/ minutely/ mindfully and you want to know me more closely
তবে ভালোবালা দাও ভালোবাসা নাও = Then give/ deliver/ offer/ allow/ bestow/ impart/ grant me love and take/ accept/ receive/ follow my love
.
নদী কেন যায় সাগরের ডাকে = Why does the river move forward to the sea/ ocean/ bay/ billow/ brine?
চাতক কেন বৃষ্টির আশায় থাকে = Why does the swallow wait for the rain/ shower/ cloudburst?
যদি বুঝতে চাও = If you want to feel/ understand/ comprehend/ realize/ realise/ catch on/ get on to/ cotton on/ perceive/ be aware/ be conscious/ discern/ grasp/ access/ know
.
আমি তোমার ঐ চোখে চোখ রেখে = Looking at your look/ eye/ sight/ light/ keekers/ glance/ attention/ outlook/ eye shot/ vision/ eye wink/ peeper
তুমি আমার এই চোখে চোখ রেখে = And looking at my look
স্বপ্ন দেখে যাও = Dream/ Fancy a dream continuously/ constantly/ continually/ ceaselessly/ incessantly/ permanently/ always/ evermore/ repeatedly
তবে ভালোবাসা দাও ভালোবাসা নাও = So/ Therefore/ Ergo/ Then, give me the love and take my love
.
কাছে এলে যাও দূরে সরে = Taking place/ coming near to me, you go away
কতদিন রাখবে আর একা করে = How many days will you keep me alone/ singly/ merely/ only?
মনে টেনে নাও = Pull at me in your heart / mind/ subject/ depth/ end/ bosom
.
আমি তোমার ঐ হাতে হাত রেখে = Keeping my hands on your hands/ forearms/ cubits/ arm
তুমি আমার এই হাতে হাত রেখে = Keeping your hands on my hands
এসো এগিয়ে যাও = Come and go ahead
শুধু ভালোবাসা দাও ভালোবাসা নাও = Only give me the love and take my love
.
▶ ▶ ▶বিশেষ সতর্কবাণী:
১. Close শব্দটি adjective হলে এর অর্থ হয় ঘনিষ্ঠ। Close এর সকল synonym এর সাথে -ly যোগ করলে adverb পাওয়া যায়, familiar ব্যতীত।
➡Familiar (adjective) = ঘনিষ্ঠ Familiarly (noun)= সঙিনী/ সাথী
২. Hand এর সকল synonym এর সাথে plural হিসেবে -s যোগ করা যাবে। তবে, arm এর সাথে ভুলেও করা যাবে না। arms অর্থ অস্ত্র, হাতগুলো নয়।
৩. Late, Fast, Hard, Flush- এরা এমনিতেই adverb, অতিরিক্ত -ly যোগ করার দরকার নেই।
.......................................................................
General Knowledge:
বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস-- ১০ জানুয়ারি
শহীদ আসাদ দিবস-- ২০ জানুয়ারি
জনসংখ্যা দিবস-- ২ ফেব্রুয়ারি
শহীদ দিবস/আন্তঃ মাতৃভাষা দিবস-- ২১ ফেব্রুয়ারি
জাতীয় পতাকা দিবস-- ২ মার্চ
রাষ্ট্রভাষা দিবস-- ১১ মার্চ
শিশু দিবস-- ১৭ মার্চ
ছয়দফা দিবস-- ৭ ই জুন
কালোরাত্রি দিবস-- ২৫ মার্চ
স্বাধীনতা দিবস/জাতীয় দিবস-- ২৬ মার্চ
প্রতিবন্ধী দিবস-- ৫ এপ্রিল
মুজিবনগর দিবস-- ১৭ এপ্রিল
পরিবেশ দিবস-- ৫ জুন
পলাশী দিবস-- ২৩ জুন
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় দিবস-- ১ জুলাই
জাতীয় শোক দিবস-- ১৫ আগস্ট
আয়কর দিবস-- ১৫ সেপ্টেম্বর
জেল হত্যা দিবস-- ৩ নভেম্বর
সংবিধান দিবস-- ৪ নভেম্বর
জাতীয় সংহতি ও বিপ্লব দিবস-- ৭ নভেম্বর
শহীদ নূর হোসেন দিবস-- ১০ নভেম্বর
মুক্তিযোদ্ধা দিবস-- ১ ডিসেম্বর
স্বৈরাচার পতন দিবস-- ৬ ডিসেম্বর
বেগম রোকেয়া দিবস-- ৯ ডিসেম্বর
শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস-- ১৪ ডিসেম্বর
বিজয় দিবস-- ১৬ ডিসেম্বর
অনন্ত বড়ু --- বড়ু চণ্ডীদাস
অচিন্তকুমার সেনগুপ্ত --- নীহারিকা দেবী
আব্দুল কাদির --- ছান্দসিক কবি
আলাওল --- মহাকবি
আব্দুল করিম --- সাহিত্য বিশারদ
ঈশ্বর গুপ্ত --- যুগ সন্ধিক্ষণের কবি
কাজেম আল কোরায়েশী --- কায়কোবাদ
কাজী নজরুল ইসলাম --- বিদ্রোহী কবি
কালি প্রসন্ন সিংহ --- হুতোম পেঁচা
গোবিন্দ্র দাস --- স্বভাব কবি
গোলাম মোস্তফা --- কাব্য সুধাকর
চারুচন্দ্র মুখোপাধ্যায় --- জরাসন্ধ
জসীম উদ্দিন --- পল্লী কবি
জীবনানন্দ দাশ --- রূপসী বাংলার কবি, তিমির হননের কবি, ধুসর পাণ্ডুলিপির কবি
ডঃ মনিরুজ্জামান --- হায়াৎ মামুদ
ডঃ মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ --- ভাষা বিজ্ঞানী
নারায়ণ গঙ্গোপাধ্যায় --- সুনন্দ
নজিবর রহমান --- সাহিত্যরত্ন
নীহাররঞ্জন গুপ্ত --- বানভট্ট
নূরন্নেসা খাতুন --- সাহিত্য স্বরসতী, বিদ্যাবিনোদিনী
প্যারীচাঁদ মিত্র --- টেকচাঁদ ঠাকুর
ফররুখ আহমদ --- মুসলিম রেনেসাঁর কবি
বলাইচাঁদ মুখোপাধ্যায় --- বনফুল
বঙ্কিমচন্দ্র চট্টপাধ্যায় --- সাহিত্য সম্রাট
বাহরাম খান --- দৌলত উজীর
বিমল ঘোষ --- মৌমাছি
বিহারীলাল চক্রবর্তী --- ভোরের পাখি
বিদ্যাপতি --- পদাবলীর কবি
বিষ্ণু দে --- মার্কসবাদী কবি
প্রমথ চৌধুরী --- বীরবল
ভারতচন্দ্র রায় --- গুনাকর
মধুসূদন দত্ত --- মাইকেল
মালাধর বসু --- গুণরাজ খান
মুকুন্দরাম --- কবিকঙ্কন
মুকুন্দ দাস --- চারণ কবি
মীর মশাররফ হোসেন --- গাজী মিয়া
মধুসূদন মজুমদার --- দৃষ্টিহীন
মোহিত লাল মজুমদার --- সত্য সুন্দর দাস
মোজাম্মেল হক --- শান্তিপুরের কবি
যতীন্দ্রনাথ বাগচী --- দুঃখবাদের কবি
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর --- বিশ্বকবি, নাইট ,ভানুসিংহ
রাজশেখর বসু --- পরশুরাম
রামনারায়ণ --- তর্করত্ন
শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় --- অপরাজেয় কথাশিল্পী
শেখ ফজলুল করিম --- সাহিত্য বিশারদ, রত্নকর
শেখ আজিজুর রহমান --- শওকত ওসমান
শ্রীকর নন্দী --- কবিন্দ্র পরমেশ্বর
সমর সেন --- নাগরিক কবি
সমরেশ বসু --- কালকূট
সত্যেন্দ্রনাথ দত্ত --- ছন্দের যাদুকর
সুনীল গঙ্গোপাধ্যায় --- নীল লোহিত
সুধীন্দ্রনাথ দত্ত --- ক্লাসিক কবি
সুকান্ত ভট্টাচার্য --- কিশোর কবি
সুভাষ মুখোপাধ্যায় --- পদাতিকের কবি
সৈয়দ ইসমাইল হোসেন সিরাজী --- স্বপ্নাতুর কবি
হেমচন্দ্র বাংলার --- মিল্টন
General Knowledge:
১। বাংলাদেশের বর্তমান প্রধান নির্বাচন কমিশনারকে? উত্তরঃ কে এম নূরুল হুদা।
২। দেশের প্রথম নারী নির্বাচন কমিশনার কে? উত্তরঃ বেগম কবিতা খানম। শপথ ও দায়িত্ব গ্রহন করেন : ১৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৭।
৩। বাংলাদেশের বর্তমান অর্থসচিবের নাম কী? উত্তরঃ হেদায়েতুল্লাহ আল মামুন।
৪। বাংলাদেশ নৌবাহিনীতে সম্প্রতি সংযোজিত দুটি সাবমেরিনে নাম কী কী?
উত্তরঃ বানৌজা নবযাত্রা ও বানৌজা জয়যাত্র। সংযোজিত হয় ১২ মার্চ ২০১৭ সালে ৪১ তম দেশ হিসেবে।
৫। প্রথমবারের মত বাংলাদেশের জাতীয়
‘গণহত্যা দিবস’ পালিত হয় কবে?
উত্তরঃ ২৫ শে মার্চ।
সদর দপ্তর
১। UNDP এর সদর দপ্তর= নিউইয়র্ক
২। জাতিসংঘের সদর দপ্তর= নিউইয়র্ক
৩। CIA এর সদর দপ্তর= ভার্জিনিয়া
৪। OIC এর সদর দফতর= জেদ্দা
৫। IRRI-এর সদর দপ্তর= ফিলিপাইন (লস ব্যানোস)
৬। সার্কের সদর দপ্তর=নেপাল (কাঠমুন্ডু)
৭। ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদর দপ্তর= ব্রাসেলস
৮। NATO এর সদর দপ্তর= ব্রাসেলস
৯। ‘UNESCO’ এর সদর দপ্তর= প্যারিসে
১০। WIPO এর সদর দপ্তর=জেনেভা
১১। ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনালে র সদর
দপ্তর=বার্লিন,জার্মানি।
১২। আন্তজার্তিক রেডক্রস এর সদর দপ্তর=
জেনেভা।
১৩। এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের সদর দফতর=ম্যানিলা
১৪। ইসলামী উন্নয়ন ব্যাংকের সদর দফতর= জেদ্দা
১৫। World Bank এর সদর দপ্তর=ওয়াশিংটন
১৬। আন্তর্জাতিক আদালতের সদর দপ্তর= হেগ
১৭। IMF এর সদর দপ্তর= ওয়াশিংটন ডিসি
১৮। ব্রিটেনের প্রশাসনিক সদর দপ্তরকে বলা হয় -
হোয়াইট হল
১৯। PLO এর সদর দপ্তর= রামাল্লা, ফিলিস্তিন
২০। IAEA এর সদর দপ্তর=ভিয়েনা
২১। WHO এর সদর দপ্তর=জেনেভা
২২। FAO এর সদর দপ্তর=রোম
২৩। BIMSTEC এর সদর দপ্তর= ঢাকা
২৪। ‘সিরডাপ’ (CIRDAP) এর সদর দপ্তর =ঢাকা
২৫। NAM এর সদর দপ্তর=সদর দপ্তরবিহীন
২৬। G-8 এর সদর দপ্তর=সদর দপ্তরবিহীন
২৭। UNIDO এর সদর দপ্তর=ভিয়েনা
২৮। ICJ ( International Court of Justice) এর সদর
দপ্তর=হেগ
২৯। OPCW (Organisation for the Prohibition of Chemical Weapons) এর সদর দপ্তর= হেগ
৩০। OPEC এর সদর দপ্তর= ভিয়েনা
৩১। WTO এর সদর দপ্তর= জেনেভা।
৩২। WLO এর সদর দপ্তর= জেনেভা
৩৩। ILO-এর সদর দফতর= জেনেভা।
৩৪। ইউএন উইমেন (UN Women) এর সদর
দপ্তর=নিউইয়র্ক
৩৫। জাতিসংঘের বিশেষ সংস্থা ইফাদ (IFAD)
এর সদর দপ্তর= রোম
৩৬। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল-এর সদর দপ্তর= লন্ডন
৩৭। ইন্টারপোল সংস্থার সদর দপ্তর= লিও
৩৮। IDA ( Int’l Development Association) এর
সদর দপ্তর=ওয়াশিংটন ডিসি
৩৯। UNICEF এর সদর দপ্তর= নিউইয়র্কে
৪০। UNCTD এর সদর দপ্তর= জেনেভা
৪১। ITU (Int’l Telecommunication Union) এর
সদর দপ্তর= জেনেভা
৪২। AFP এর সদর দপ্তর= প্যারিস, ফ্রান্স।
৪৩। AP এর সদর দফতর= নিউইয়র্ক, যুক্তরাষ্ট্র।
৪৪। রয়টার্সের সদর দপ্তর= লন্ডন, ব্রিটেন।
৪৫। CNN (Cable News Network) এর সদর
দফতর= আটলান্টা, জর্জিয়া(যুক্তরাষ্ট্র)
৪৬। কমনওয়েলথ এর সদর দফতর=লন্ডন
৪৭। D-8 (Developing 8) এর সদর দফতর=
ইস্তাম্বুল, তুরস্ক
৪৮।UNU (United Nation University)=
টোকিও, জাপান।
৪৯। ফিফার (FIFA) সদর দপ্তর= জুরিখ,
সুইজারল্যান্ড
৫০। আইসিসি এর সদর দপ্তর=দুবাই, (ইউনাইটেড আরব আমিরাত)
General Knowledge:
বাংলাদেশ অর্থনৈতিক সমীক্ষা-২০১৭
………………………………………
# বর্তমানে বাংলাদেশের মাথাপিছু আয় কত ?
উ: ১৬০২ মার্কিন ডলার ।
# বাংলাদেশে বর্তমানে অতি দারিদ্র্যের হার কত?
উ: ১২.১ % । দারিদ্র্যের হার -- ২৩.৫ % ।
# জিডিপিতে প্রবৃদ্ধির হার কত ?
উ: ৭.২৪ % ।
# মানব উন্নয়ন সূচকে বাংলাদেশের অবস্থান কত ?
উ: ১৩৯ তম ।
# বর্তমানে বাংলাদেশে জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার কত ?
উ: ১.৩৭ % । মোট জনসংখ্যা - ১৬.১৭ কোটি ।
# বর্তমানে বাংলাদেশে শিক্ষার হার কত ?
উ: ৬২.৭ % ।
# বাংলাদেশে মোট কতটি সরকারি বিশ্ববিদ্যালয় আছে ?
উ: ৪০ টি ।
# বর্তমানে বাংলাদেশের জনগণের প্রত্যাশিত আয়ুষ্কাল কত ?
উ: ৭০.৯ বছর । পুরুষের ৬৯.৪ বছর এবং নারীদের ৭২ বছর ।
# ২০১৬ - ১৭ অর্থবছরে বাংলাদেশে খাদ্যশস্য উৎপাদন হয়েছে ?
উ: ৩৯৬.৮৮ লক্ষ মেঃটন ।
# দেশে বর্তমানে মাতৃমৃত্যুর হার কত ?
উ: ১.৮১ % ।
# দেশে ডাক্তার প্রতি জনসংখ্যা কত ?
উ: ২৬২৮ জন ।
# বাংলাদেশে কয়টি অর্থনৈতিক অঞ্চল রয়েছে ?
--- ৭৬ টি । সরকারি - ৫৬ টি এবং বেসরকারি ২০ টি ।
# দেশে বর্তমানে গড় মুদ্রাস্ফীতির হার কত ?
উ: ৫.৫ % ।
# বর্তমানে দেশে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ কত ?
উ: ৩২.৪৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ।
# বর্তমানে বাংলাদেশের রেমিট্যান্স কত ?
উ: ৯১৯৪.৫১ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ।
# ২০১৬- ১৭ অর্থবছরে দেশে রপ্তানি আয় হয়েছে কত ?
উ: ২৫৯৪৬.০২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ।
# ২০১৬ - ১৭ অর্থবছরে দেশে সরাসরি বৈদেশিক বিনিয়োগ হয়েছে কত ?
উ: ২,৩৩২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ।
# জলবায়ু পরিবর্তন সংক্রান্ত তহবিলে মোট কত টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে ?
উ: ৩,১০০ কোটি টাকা ।
# বর্তমানে বাংলাদেশের জিডিপির আকার কত ?
উ: ১৯,৫৬,০৫৬ কোটি টাকা ।
# বাংলাদেশের জিডিপিতে কৃষিখাতের অবদান কত ?
উ: ১৪.৭৯ % ।
# সেবা খাতের অবদান - ৫২.৭৩ %
# শিল্প খাতের অবদান - ৩২.৪৮ % ।
# ২০১৬-১৭ অর্বথছরে দেশে মোট বিনিয়োগ হয়েছে কত কোটি টাকা ?
উ: ৫,৯২,০৭৪ কোটি টাকা ।
# দেশের মোট জনসংখ্যার শতকরা কত ভাগ মানুষ বিদ্যুৎ সুবিধা পাচ্ছে ?
উ: ৮০ ভাগ ।
# দেশে বর্তমানে বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতা কত ?
উ: ১৩,১৭৯ মেগাওয়াট ।
# বাংলাদেশে বর্তমানে আবিষ্কৃত গ্যাসক্ষেত্র কতটি ?
উ: ২৭ টি ।
# দেশে মোট প্রকৃত গ্যাসের উৎপাদন কত ?
উ: ১৪.৩৮ ট্রিলিয়ন ঘনফুট । উত্তোলনযোগ্য - ১২.৭৪ ট্রিলিয়ন ঘনফুট ।
# বাংলাদেশে মোট জ্বালানি তেলের মজুদ রয়েছে ?
উ: ১২.২১ লক্ষ মেট্রিক টন
সদর দপ্তর
১। UNDP এর সদর দপ্তর= নিউইয়র্ক
২। জাতিসংঘের সদর দপ্তর= নিউইয়র্ক
৩। CIA এর সদর দপ্তর= ভার্জিনিয়া
৪। OIC এর সদর দফতর= জেদ্দা
৫। IRRI-এর সদর দপ্তর= ফিলিপাইন (লস ব্যানোস)
৬। সার্কের সদর দপ্তর=নেপাল (কাঠমুন্ডু)
৭। ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদর দপ্তর= ব্রাসেলস
৮। NATO এর সদর দপ্তর= ব্রাসেলস
৯। ‘UNESCO’ এর সদর দপ্তর= প্যারিসে
১০। WIPO এর সদর দপ্তর=জেনেভা
১১। ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনালে র সদর
দপ্তর=বার্লিন,জার্মানি।
১২। আন্তজার্তিক রেডক্রস এর সদর দপ্তর=
জেনেভা।
১৩। এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের সদর দফতর=ম্যানিলা
১৪। ইসলামী উন্নয়ন ব্যাংকের সদর দফতর= জেদ্দা
১৫। World Bank এর সদর দপ্তর=ওয়াশিংটন
১৬। আন্তর্জাতিক আদালতের সদর দপ্তর= হেগ
১৭। IMF এর সদর দপ্তর= ওয়াশিংটন ডিসি
১৮। ব্রিটেনের প্রশাসনিক সদর দপ্তরকে বলা হয় -
হোয়াইট হল
১৯। PLO এর সদর দপ্তর= রামাল্লা, ফিলিস্তিন
২০। IAEA এর সদর দপ্তর=ভিয়েনা
২১। WHO এর সদর দপ্তর=জেনেভা
২২। FAO এর সদর দপ্তর=রোম
২৩। BIMSTEC এর সদর দপ্তর= ঢাকা
২৪। ‘সিরডাপ’ (CIRDAP) এর সদর দপ্তর =ঢাকা
২৫। NAM এর সদর দপ্তর=সদর দপ্তরবিহীন
২৬। G-8 এর সদর দপ্তর=সদর দপ্তরবিহীন
২৭। UNIDO এর সদর দপ্তর=ভিয়েনা
২৮। ICJ ( International Court of Justice) এর সদর
দপ্তর=হেগ
২৯। OPCW (Organisation for the Prohibition of Chemical Weapons) এর সদর দপ্তর= হেগ
৩০। OPEC এর সদর দপ্তর= ভিয়েনা
৩১। WTO এর সদর দপ্তর= জেনেভা।
৩২। WLO এর সদর দপ্তর= জেনেভা
৩৩। ILO-এর সদর দফতর= জেনেভা।
৩৪। ইউএন উইমেন (UN Women) এর সদর
দপ্তর=নিউইয়র্ক
৩৫। জাতিসংঘের বিশেষ সংস্থা ইফাদ (IFAD)
এর সদর দপ্তর= রোম
৩৬। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল-এর সদর দপ্তর= লন্ডন
৩৭। ইন্টারপোল সংস্থার সদর দপ্তর= লিও
৩৮। IDA ( Int’l Development Association) এর
সদর দপ্তর=ওয়াশিংটন ডিসি
৩৯। UNICEF এর সদর দপ্তর= নিউইয়র্কে
৪০। UNCTD এর সদর দপ্তর= জেনেভা
৪১। ITU (Int’l Telecommunication Union) এর
সদর দপ্তর= জেনেভা
৪২। AFP এর সদর দপ্তর= প্যারিস, ফ্রান্স।
৪৩। AP এর সদর দফতর= নিউইয়র্ক, যুক্তরাষ্ট্র।
৪৪। রয়টার্সের সদর দপ্তর= লন্ডন, ব্রিটেন।
৪৫। CNN (Cable News Network) এর সদর
দফতর= আটলান্টা, জর্জিয়া(যুক্তরাষ্ট্র)
৪৬। কমনওয়েলথ এর সদর দফতর=লন্ডন
৪৭। D-8 (Developing 8) এর সদর দফতর=
ইস্তাম্বুল, তুরস্ক
৪৮।UNU (United Nation University)=
বিশ্বের যা কিছু বৃহত্তম
General Knowledge:
• বৃহত্তম মহাদেশ : এশিয়া।
• বৃহত্তম মহাসাগর: প্রশান্ত মহাসাগর।
• বৃহত্তম দেশ : রাশিয়া।
• বৃহত্তম শহর : লন্ডন (আয়তনে)
• বৃহত্তম শহর : টোকিও (জনসংখ্যায়)
• বৃহত্তম ব-দ্বীপ : বাংলাদেশ।
• বৃহত্তম যাদুঘর : বিটিশ মিউজিয়াম।
• বৃহত্তম বিমান বন্দর :জেদ্দা বিমানবন্দর।
• বৃহত্তম গ্রন্থাগার :লাইব্রেরী অব দ্য কংগ্রেস।
• বৃহত্তম ঘড়ি : মক্কা ক্লক (সৌদি আরব)।
• বৃহত্তম মসজিদ : শাহ ফয়সাল মসজিদ।
• বৃহত্তম ব্যাংক : সুইস ব্যাংক।
• বৃহত্তম হ্রদ : কাস্পিয়ান সাগর।
• বৃহত্তম জলপ্রপাত : নায়গ্রা।
• বৃহত্তম প্রাণী : নীল তিমি
• বৃহত্তম মরুভূমি : সাহারা মরুভূমি।
• বৃহত্তম দিন : ২১ জুন।
• বৃহত্তম রাত : ২২ ডিসেম্বর।
ছন্দে ছন্দে Preposition শেখার সহজ উপায় - নগর, শহর, দেশ, এদের আগে in বসিয়ে করবে বেশ।
-
সপ্তাহ, মাস, বছর, ঋতু, দশক, যুগ, শতাব্দী, এদের আগে
in বসানো হয় আজ অব্দি।
-
প্রভাত, দুপুর, গোধূলি, রাত, এদের আগে at বসিয়ে
করবে বাজিমাত।
-
সময়ের আগে at বসে, দিনের আগে on, দিনের অংশ
ভাগে in না বসালে, করবে তবে Wrong।
-
Festival-এ at, নম্বরেও at, with হয় বস্তুতে, এইভাবে
preposition শিখবে আনন্দ আর ফুর্তিতে।
-
Person-এ by, পাশে বুঝাতেও by, (যানবাহনের আগে)
কিন্তু in a car, দক্ষতায় অদক্ষতায় at না বসালে সব
হবে ছারখার।
-
ছোট হলে at, বড় হলে in, কখন হয়? এই পার্থক্য না
বুঝলে মনে থাকবে ভয়।
-
বাহির থেকে ভিতরে into ব্যবহার করো, ভিতর থেকে
বাহিরে হয় out of, Preposition না বুঝলে মুড থাকবে
off।
-
লেগে (স্পর্শ করে) থাকলে on হয়, নইলে হয় above,
Since, for বুঝ না, কেন নাও ভাব?
-
শুরু থেকে বুঝাতে since হয়, নইলে হয় for, গতি বুঝাতে
(উপর দিয়ে) over, নিচে হয় under, Preposition আসলেই
খুব মজার।
-
মাত্রা (স্তর) বুঝাতে হয় below, Preposition শিখতে
পেরে, আমি আছি খুব ভালো।
-
On- এ গিয়ে গতি হলে শেষ হয় onto, সাথে বুঝাতে
with হয়,দিক বুঝাতে to. কোনো কিছুর ভিতর দিয়ে
যেতে হয় through (বাধা থাকলে)।
-
এ পাশ থেকে ওপাশে যেতে হয় across, (বাধা না
থাকলে)।
-
Preposition শিখলে নেই কোনো Loss। এর বুঝাতে of হয় Boss

Send your Articles/Writings to our media site (Free)..........selltoearnmoney@gmail.com or info@facetubemedia.co

পরের পাতায়
Next Page

Next Page.............Thank you for staying with us...
Send your feedback to our email address:

selltoearnmoney@gmail.com or info@selltoearn.com